বিনোদন

মায়ের কোলে পুঁচকে ছেলে, একরত্তি সন্তান ও স্ত্রীর ছবি শেয়ার করে আবেগঘন রাজা গোস্বামী, ভাইরাল ছবি

মা হওয়ার অনুভূতি সবসময়ই বিশেষ হয়। মা হওয়ার সাথে সাথে একটা মেয়ের জীবনে অনেক পরিবর্তন আসতে থাকে‌। নিজের অনেক অসম্পূর্ন ইচ্ছে আবার নতুন করে পূর্ণ করতে ইচ্ছে করে। এর ব্যতিক্রম নন অভিনেত্রী মধুবনী‌। নিজের সেই অনুভূতির কথাই সম্প্রতি স্যোশাল মিডিয়ার মাধ্যমে অনুগামীদের সাথে ভাগ করে নেন অভিনেত্রী।

 

আগের বছর পূজোর পরেই রাজা এবং মধুবনী দুজনের জীবনে নতুন অতিথি আসার কথা ঘোষণা করেন। তারপর থেকেই নিজের বেবি বাম্পের ছবি পোস্ট করতে থাকেন অভিনেত্রী। অন্তঃসত্ত্বা অবস্থার প্রতিটা মুহূর্তকে উপভোগ করছেন এই অভিনেত্রী। সেই মুহুর্তগুলোর ছবি তিনি পোস্ট করতেন নিজের স্যোশাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে। প্রেগনেন্সির জন্য অভিনয় থেকে বিরতি নিলেও নিজের পার্লারের কাজ বন্ধ রাখেননি তিনি। সবসময় তাকে কাজের মধ্যেই থাকতে দেখা গেছে। হয়ে উঠেছেন হাজার হাজার মেয়েদের অনুপ্রেরণা।

 

সম্প্রতি রাজা এবং মধুবনীর ঘর আলো করে এসেছে এক পুত্র সন্তান। কিছুদিন আগেই সন্তান এবং মধুবনীর সাথে তোলা ছবি রাজা নিজের স্যোশাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে পোস্ট করেন। তবে রাজা বা মধুবনী কেউই এখনও সদ্যজাতর মুখ দেখাননি স্যোশাল মিডিয়াতে। এই জুটির ছেলেকে দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করে আছেন তাদের অনুগামীরা। তারা নিজেদের ছেলের নাম রেখেছেন কেশব।

 

সম্প্রতি মধুবনী হাসপাতাল থেকে ছেলে কোলে নিয়ে ফিরছেন এমন একটি ছবি নিজের ইনস্টা হ্যান্ডেলে পোস্ট করে নিজেদের জীবনের স্মৃতিচারণ করেন রাজা গোস্বামী। তিনি ক্যাপশনে লেখেন, তার মনে হচ্ছে এই তো সেদিনের কথা যেদিন তিনি এবং রাজ লোকের চোখ এড়িয়ে কফি খাচ্ছেন। অনেক সন্ধ্যা অনেক মুহূর্ত তারা একসাথে কাটিয়েছেন। তারপর তিনি লেখেন এখন তাদের মাঝে কেশব এসেছে। শুটিং সেরে ফেরার পথে তিনি ট্রাফিক সিগন্যালে দাঁড়ানো খেলনাওয়ালার কাছ থেকে খেলনা কেনেন। তারপর তিনি বলেন তিনি যখন ছোট ছিলেন তখন তার খেলনা কিনতে খুব ইচ্ছে করত তিনি ভাবতেন তিনি যখন বড় হয়ে অনেক টাকা উপার্জন করবেন তখন তিনি খেলনা কিনবেন। কিন্তু বড় হয়ে ওঠার পরে তার সেই ইচ্ছা চলে যায়। কেশব আসার পর তিনি নিজের ছেলের মাধ্যমে সেই ইচ্ছা ফিরে পেলেন। ছবি পোস্ট করার সাথে সাথেই তার অনুগামীরা তাকে শুভেচ্ছা জানান।

 

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Raja Goswami (@raja.goswami007)

 

Related Articles

Back to top button