বিনোদন

অলকা ইয়াগ্নিকের প্রতি অদ্ভুত চাহানি, রেগে গিয়ে আমির খানকে স্টুডিও থেকে তাড়িয়ে দেন গায়িকা

বলিউড ইন্ডাস্ট্রির একজন প্রথম সারির অভিনেতাদের তালিকায় রয়েছেন বিখ্যাত অভিনেতা আমির খান। আমির খান বলিউডে নিজের ক্যারিয়ার ১৯৮৪ সালে রিলিজ হওয়া ছবি ‘হোলি’র মাধ্যমে করলেও তার প্রথম সফল সিনেমা ছিল ১৯৮৮ সালে রিলিজ হওয়া তার চাচাতো ভাই মনসুর খানের ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’।

আমি খান সবে নিজের ক্যারিয়ার গড়তে শুরু করেছেন। তখন এত জাকজমকতা ছিলনা বলিউডে। তখন সবেমাত্র সফলতার সিঁড়ি চরতে শুরু করেছিলেন তিনি। অবশ্য এই সিনেমার কারণে তিনি ফিল্মফেয়ার পুরস্কার পেয়েছিলেন। যা ছিল তার ক্যারিয়ারের প্রথম সম্মান। অন্যদিকে এই ছবির সাথে জড়িয়ে ছিল এক আলাদা রহস্য। সালটা ১৯৮৮ বলিউডের বিখ্যাত সঙ্গীত শিল্পী আলকা ইয়াগ্নিক নিজের ক্যারিয়ার সবেমাত্র শুরু করেছেন। প্রথমবার সিনেমায় গানের সুযোগ পেয়েছিলেন আমির খানের ছবি ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’ এ। প্লেব্যাক সিঙ্গার হিসেবে বলিউডে ছিল এটি তার প্রথম কাজ।

সিনেমার জন্য একটি গান গাইতে স্টুডিওতে উপস্থিত হন গায়িকা আলকা ইয়াগ্নিক। গানের রেকর্ডিং চলছিল এবং কাচের ঘরে আলকা ইয়াগ্নিক গান গাইছিলেন। অন্যদিকে কাচের ঘরের বাইরে বসে ছিলেন অভিনেতা আমির খান। গান গাওয়ার মাঝে গায়িকার দিকে বারবার তাকাচ্ছিলেন অভিনেতা আমির খান যা আলকার একদমই পছন্দ হয়নি তিনি অস্বস্তি বোধ করছিলেন এতে। যার কারণে কাজে মনসংযোগ যোগাতে পারছিলেন না তিনি।

এমন সময়ই বেজায় চটে যান তিনি এবং রাগের মাথায় স্টুডিও থেকে বার করে দেন আমির কে। যদিও বা আমির খান এতে টু শব্দটি করেননি এবং তিনিও স্টুডিও থেকে চুপচাপ বেরিয়ে যান। অবশ্য দুজনেই নিজেদের ক্যারিয়ারের শুরুতে ছিলেন যার কারণে আমির খান কে চিনতেন না আলকা ইয়াগ্নিক। এর কিছুক্ষণ পর সিনেমার পরিচালক নাসির সেখানে উপস্থিত হন এবং আমির খানকে ভেতরে প্রবেশ করান। এরপর গায়িকা সমস্ত টা বুঝতে পারেন এবং খুবই লজ্জিত বোধ করেন। অবশ্য ঘটনার পর গায়িকা আমির খানের কাছে ক্ষমা চেয়ে নিয়েছিলেন।

Related Articles

Back to top button